কৌতুক অভিনয় ছেড়ে পরিপূর্ণ ইসলামের পথে জনপ্রিয় ইউটিউবার তুষার

প্রকাশিত: 7:55 PM, July 24, 2020

অনলাইন ডেস্ক: বিচিত্র অঙ্গভঙ্গি আর অভিনয়ের মাধ্যমে নিমিষেই মানুষের মন ভালো করে দেন তিনি। হাসতে হাসতে লুটোপুটি খায় একটু আগেও মুখ গোমড়া করে রাখা মানুষটি। অন্যকে হাসিয়েই হাসেন তিনি, খুঁজে পান আনন্দ। বলছিলাম তরুণদের কাছে জনপ্রিয় ইউটিউবার তানভীর হায়দার তুষার ওরফে কিং’ওপলির কথা। গত বছর অক্টোবরে মিস বাংলাদেশ ২০১৮ ফাইনালের ভাইরাল হওয়া ভিডিওর ভয়েস রিমেক করে একটি ভিডিও নিজের চ্যানেলে দেয়ার পরই মূলত সকলের নজরে পড়েন তুষার। নিজের চ্যানেল ‘কিংয়োপলি’ (KinGOPoly) অবশ্য খুলেছিলেন তারও অনেক আগে, ২০১৫ সালে। সে সময়ে বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াকালীন বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডার ছলে নানা মানুষের ভয়েস নকল করে, অঙ্গভঙ্গি করে মজার অভিনয় করতেন। বন্ধুরা দারুণ প্রশংসা করতো। তখন থেকেই শখের বশে ভিডিও করার ইচ্ছেটা তৈরি হয় তুষারের।

দুই-তিন মাস আগে তিনি হঠাৎ তার ইউটিউব এবং ফেসবুকের সব ভিডিও ডিলিট করে দিয়েছেন। অনেকেই মনে করেছেন তার ইউটিউব চ্যানেল হ্যা’ক হয়েছে। আসলে তা নয়, সম্প্রতি তিনি ফেসবুক লাইভে এসে ভিডিও রিমুভ করে দেওয়ার কারন জানিয়েছেন।

তানভীর হায়দার তুষার ওরফে কিং’ওপলি মনে করেন তার ভিডিওগুলোতে কথা, অভিনয় তার দিক থেকে অনেকটা ভুল ছিলো। ইসলামের দৃষ্টিভঙ্গি থেকে তিনি তার ভিডিওগুলো সঠিক মনে করছেন না। তার ভিডিও দেখে অন্য কেউ সমান কাজটি করলে তার দায়ভার কিং’ওপলির উপরেই পরবে বলে তিনি মনে করেন। ইসলামিক জীবনআদর্শে তিনি চলতে চান এবং এখন চেষ্টা করে যাচ্ছেন। তার ভিডিওতে কেউ কষ্ট পেয়ে থাকলে ক্ষমা করার অনুরোধ করেন তিনি।

তিনি তার নিজের জন্য দোয়া চেয়েছেন সবার কাছে। তুষার ২০১৮ সালে আহসানউল্লাহ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং-এ বিএসসি শেষ করেছেন। মাইক্রোসফটে বাংলাদেশ থেকে যেই গুটি কয়েক মানুষ ইন্টার্নশিপ করেছেন, তুষার তাদের মধ্যে একজন। ২০১৭ থেকে সফটওয়্যার ইন্ডাস্ট্রিতে নিয়মিত কাজ করছেন। বর্তমানে কাজ করছেন একটি ইউএস বেজড সফটওয়্যার প্রতিষ্ঠানে প্রোডাক্ট ম্যানেজার এবং ইউএক্স লিড হিসেবে।